রাঙামাটি

`শিক্ষার্থীদের কল্যাণই শিক্ষকের একমাত্র ব্রত’

আরমান খান, লংগদু ॥
শিক্ষার্থীদের শিক্ষা গ্রহণ ছাড়া অন্য কোনো কাজে ব্যস্ত থাকাটা ঠিক না, লেখাপড়া করেই নিজের জীবনকে সুন্দর করে গড়তে হবে। জীবনের লক্ষ্য নির্ধারণ করে তা অর্জনের সর্বোচ্চ লড়াইটা করে যেতে হবে। আর শিক্ষার্থীদের এ লড়াইয়ে সর্বাত্মক সহযোগিতা করতে হবে অভিভাবকদের। সন্তানদের সুন্দর ভবিষ্যত গড়তে মায়েদের ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ। মায়েদের আরো বেশি যতœ নিয়ে সন্তানদের সব বিষয়ে ভূমিকা রাখতে হবে। পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের সঠিক পথ দেখানোর জন্য শিক্ষকদেরও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। শিক্ষকদের দেখানো পথে হাটলে কোনো শিক্ষার্থী ব্যর্থ হবে না। অনেক শিক্ষক শিক্ষকতার মহান পেশাকে শুধুমাত্র চাকরি মনে করে শিক্ষার্থীদের বঞ্চিত করেন। এটা একজন আদর্শ শিক্ষকের দায়িত্ব হতে পারে না। শিক্ষার্থীদের কল্যাণে নিবেদিত থাকাটাই শিক্ষকের মহান ব্রত হওয়া উচিৎ।

রাঙামাটির লংগদুতে মাইনীমূখ মডেল হাই স্কুলের সদ্য বিদায়ী দুই শিক্ষক ও এসএসসি পরীক্ষার্থীদের বিদায় সংবর্ধনা উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে একথা বলেন বক্তারা। বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রফিকুন্নেছা রুজি’র সভাপতিত্বে বৃহস্পতিবার সকালে বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠিত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে আরো প্রধান অতিথি ছিলেন মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মাকসুদুর রহমান। সভায় বক্তব্য রাখেন বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি আবুল কালাম আযাদ, বিদায়ী শিক্ষক শাহ আলম, ও শহিদুল ইসলাম, লংগদু সরকারি মডেল কলেজের প্রভাষক হারুনুর রশিদ, বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সদস্য জামাল হোসেন।

বিদ্যালয়ের সহকারি প্রধান শিক্ষক তাজ মাহামুদ এর পরিচালনায় অনুষ্ঠানে বিদায়ী দুই শিক্ষককে সম্মাননা স্মারক ও উপহার প্রদান করেন অতিথিবৃন্দ। এছাড়াও অনুষ্ঠানে আগত অতিথিদের প্রীতি উপহার প্রদান করেন বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকসহ অন্যান্য শিক্ষকমন্ডলী। সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন একাডেমিক সুপার ভাইজার শওকত আকবর, সমাজ সেবক এফএম শহিদুর রহমান সাগর, মুক্তিযোদ্ধা শাহনেওয়াজ চৌধুরী, ইউপি সদস্য রাবেয়া বেগম।

এই বিভাগের আরো সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

4 × 5 =

Back to top button