ব্রেকিংরাঙামাটিলিড

শক্তিমান হত্যাকান্ডে জড়িত জেএসএস নেতাসহ আটক ৪

রাঙামাটির নানিয়ারচর উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ও পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির (এমএন লারমা) সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট শক্তিমান চাকমা হত্যাকান্ডের ঘটনায় জড়িত সন্দেহে চারজনকে আটক করেছে যৌথবাহিনী।

বুধবার ভোররাতে তাদের আটক করা হলেও বিকালের দিকে গণমাধ্যমকে বিষয়টি জানানো হয়েছে। আটকের পর আজ বুধবার বিকালে রাঙামাটি চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে তাদের তোলা হয়। পরে আদালত আসামিদের কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

আটককৃতরা হলেন- সুভাষ চাকমা (৪০), দিলীপ চাকমা (৪২), ঋতু চাকমা (৩৮) এবং তুঙ্গ রাম দেওয়ানকে (৩৬)। তারা সবাই পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির সদস্য (জেএসএস)। এরমধ্যে সুভাষ চাকমা রাঙ্গামাটির কাউখালী উপজেলা জনসংহতি সমিতির (জেএসএস) সভাপতি।

যৌথবাহিনী সূত্র জানিয়েছে, বুধবার ভোররাতে কাউখালীর ঘাগড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে উপজেলা জেএসএস’র সভাপতি সুভাষ চাকমা ও সদর উপজেলার কতুকছড়িতে অভিযান চালিয়ে দিলীপ চাকমা, ঋতু চাকমা এবং তুঙ্গ রাম দেওয়ানকে আটক করা হয়।

কোর্ট পুলিশ পরিদর্শক (ওসি) ইসরাফিল আলম মজুমদার জানান, নানিয়ারচর উপজেলা চেয়ারম্যান শক্তিমান চাকমা হত্যাকান্ডে জড়িত থাকার অভিযোগে ৪ জনকে বুধবার বিকালে আদালতে তোলা হয়েছে। আদালত তাদেরকে জেল হাজতে পাঠানোর নির্দেশ প্রদান করে।

উল্লেখ্য, গত ৩ মে রাঙামাটির নানিয়াচর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শক্তিমান চাকমা নিজ কার্যালয়ের সামনেই দুবৃর্ত্তদের গুলিতে নিহত হন। এ ঘটনার পর দিন তাঁর শেষকৃত্যে অনুষ্ঠানে যোগ দিতে আসার পথে দুর্বৃত্তদের ব্রাশফায়ারে ইউপিডিএফ’র (গণতান্ত্রিক) প্রতিষ্ঠাতা প্রধান তপন জ্যোতি চাকমা ওরফে বর্মাসহ ৫জন নিহত হয়। এ দুই ঘটনায় নানিয়ারচর থানায় পৃথক দুইটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছিলো।

এই বিভাগের আরো সংবাদ

Leave a Reply

Back to top button