করোনাভাইরাস আপডেটব্রেকিংরাঙামাটিলিড

রাঙামাটিতে  পিপিই মজুদ  ৯১১ সেট, হোম কোয়ারেন্টাইনে  ১৮১ জন

করোনাভাইরাস মোকাবেলায় রাঙামাটির জেলা প্রশাসন এ পর্যন্ত সার্বিক প্রস্তুতি সম্পূর্ণ করেছে। দিনে-রাতে সর্বত্র কাজ করে যাচ্ছে জেলা প্রশাসক, নির্বাহী ম্যাজিট্রেট ও অন্যান্য কর্মকর্তারা। জেলা প্রশাসনের বরাতে জানা যায়, রাঙামাটিতে বর্তমানে চিকিৎসা সুরক্ষার জন্য ৯১১টি পিপিই মজুদ রয়েছে। সোমবার সকালে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে পাঠানো  একটি ইমেইল বার্তায় এ তথ্য জানানো হয়।

এ বার্তার মাধ্যমে জানা যায়, ‘করোনাভাইরাস চিকিৎসার জন্য সরকারি ১১টি কেন্দ্র ঠিক করে রাখা হয়েছে, এতে ২৬৩টি বেড রয়েছে, যার মধ্যে কোভিড-১৯ চিকিৎসার জন্য প্রস্তুতকৃত বেড রয়েছে ১৪২টি। কোভিড-১৯ মোকাবেলায় ডাক্তার প্রস্তুত করে রাখা হয়েছে ৮৬জনকে এবং নার্স রয়েছেন ১০০জন।’

এ বার্তায় আরো জানানো হয়, ‘ব্যক্তিগত সুরক্ষা সামগ্রীর মধ্যে পিপিই রয়েছে ৯১১টি, যার মধ্যে বিতরণ করা হয়েছে ১২টি এবং সর্বমোট মজুদের মধ্যে জেলা প্রাণী সম্পদ বিভাগের কাছে পিপিই মজুদ রয়েছে ৫০০টি। এছাড়া সার্জিকেল মাস্ক রয়েছে ১৪৭০টি, বিতরণ করা হয়েছে ৪০টি। মাস্ক এন রয়েছে ৯৫-৬০টি, হাতে তৈরি মাস্ক ২৮০টি, বিতরণ করা হয়েছে ২২০টি। জরুরী ঔষধ পর্যাপ্ত মজুদ রয়েছে।’

এতে আরো  জানানো হয়েছে, ‘রাঙামাটিতে পূর্বে ১৭৩জন এবং বর্তমানে আরো ০৮জন সহ বর্তমানে হোম-কোয়ারেন্টাইনে সর্বমোট রয়েছেন ১৮১জন। যারমধ্য থেকে আবার কোয়ারেন্টাইন ছাড়পত্র পেয়েছেন ৬৭জন। ১ মার্চ থেকে বিদেশ প্রত্যাগত ২৪৯ জন, যার মধ্যে ঠিকানা ও অবস্থান চিহ্নিত বিদেশ প্রত্যাগত ব্যক্তি ১৫৬জন।’

MicroWeb Technology Ltd

এই বিভাগের আরো সংবাদ

Leave a Reply

এই সংবাদটি দেখুন
Close
Back to top button
Close