ব্রেকিংরাঙামাটিলিড

ভূষনছড়ায় নিহতদের স্মরণ পার্বত্য বাঙালী ছাত্র পরিষদের

১৯৮৪ সালের ৩১ মে শান্তিবাহিনীর হাতে বরকলের ভূষণছড়ায় নিহত ৪০০ বাঙালীর বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা ও হত্যাকারিদের বিচার দাবিতে কর্মসূচী পালন করেছে পার্বত্য বাঙালী ছাত্র পরিষদ।

সংগঠনটির বরকল উপজেলা শাখা ৩১ মে শুক্রবার নিহতদের গণকবরের কাছেই ভূষণছড়া গনহত্যার স্মরণে প্রতিবাদি শোকসভা, কবর জিয়ারত ও দোয়া অনুষ্ঠান পালন করেছে।

সংগঠনটির বরকল উপজেলা সভাপতি মোঃ আল আমিন এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন রাঙামাটি জেলা সভাপতি মোঃ জাহাঙ্গীর আলম, প্রধান বক্তা ছিলেন ভূষনছড়া ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল মামুন।

এতে প্রধান অথিতির বক্তব্যে পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্রপরিষদ রাঙামাটি জেলা সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম বলেন, ৩৫ বছর পার হলেও রাঙামাটি জেলার ভূষণছড়ায় সংঘটিত গণহত্যার বিচার হয়নি। ভূষণছড়ার নিরীহ চার শতাধিক বাঙালী হত্যার সাথে জড়িত খুনিদের দ্রুত চিহ্নিত করে বিচার এবং ফাঁসির দাবি করেন তিনি। তিনি আরো বলেন, পার্বত্যাঞ্চলে ভূষণছড়া গণহত্যা, এখানে সংঘটিত হত্যাকাণ্ডগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বৃহৎ এবং ভয়াবহ হত্যাকাণ্ড। এই হত্যাকান্ডের বিচার না হওয়ার কারণেই পার্বত্য জনপদে এখনো ত্রাসের রাজত্ব চলছে।’ তিনি‘ পার্বত্যাঞ্চলে এতো গণহত্যার ঘটনা ঘটলেও একটি গণহত্যারও বিচার হয়নি বলে অভিযোগ করেন।

জাহাঙ্গীর আলম আরো বলেন, সেই সময়কার শান্তিবাহিনী এখন
জেএসএস, ইউপিডিএফ ও সংস্কারপন্থি নানান নামে এখনো পার্বত্য চট্টগ্রামে গুম খুন সন্ত্রাসী কর্মকান্ড চাঁদাবাজিসহ রাষ্ট্রদ্রোহী কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছে। পাহাড়ে কম্বিং অপারেশন চালিয়ে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার ও দেশবিরোধী তৎপরতা প্রতিহত করার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

MicroWeb Technology Ltd

এই বিভাগের আরো সংবাদ

Leave a Reply

Back to top button