করোনাভাইরাস আপডেটবান্দরবানব্রেকিংলিড

বৃষ্টির পানিতে সয়লাব বাইশারীর অস্থায়ী বাজার

ব্যবসায়ী ও ক্রেতাদের চরম দুর্দশা

করোনা ভাইরাস সংক্রামন থেকে বাঁচার লক্ষ্যে সরকারী নির্দেশনা অনুযায়ী বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার বাইশারী বাজার গত দুইমাস আগে অস্থায়ী ভাবে বাইশারী উচ্চবিদ্যালয় ও কলেজ মাঠে স্থানান্তরিত করা হয়। বর্তমানে বৃষ্টির কারনে খোলা মাঠে ব্যবসায়ীদের মালামাল ও জনসাধারনের চলাচলে চরম দুর্দশায় পরিণত হয়েছে।
বুধবার সকালে অস্থায়ী বাজার পরিদর্শন করে দেখা যায়, অতি বৃষ্টির কারনে ব্যবসায়ীদের মালামাল ভিজে যাচ্ছে। জনসাধারনের চলাচলে চরম দুর্দশা, কাদা পানিতে ক্রেতাদের কাপড় চোপড় নষ্ট সহ নানা সমস্যার সম্মুখীন।

কাঁচা বাজার ব্যবসায়ী ফরিদুল আলম, ফজল কাদের, নুরুল কাদের সহ অনেকের সাথে কথা বলে জানা যায়, তারা সরকারের নির্দেশ মোতাবেক রোদে পুড়ে বৃষ্টিতে ভিজে সেখানে রয়েছে চরম কষ্টে। এতে তাদের অনেক ক্ষতি হয়েছে। বর্তমানে অতি বৃষ্টির কারনে কাদা পানিতে লন্ডবন্ড হয়ে নষ্ট হচ্ছে মালামাল। তাছাড়া পরিবেশের ভারসাম্য ও নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। সব মিলিয়ে বৃষ্টিপাতের কারনে এখন চরম দুর্দশায় পরিনত অস্থায়ী করেনা বাজার।

ব্যবসায়ী নেতা ও কমিটির কোষাধ্যক্ষ আবদুল করিম বান্টু জানান, দ্রæত কাচা বাজার পূর্বের জায়গায় ফিরিয়ে না নিলে ব্যবসায়ীদের বিশাল ক্ষতির সম্ভাবনা রয়েছে। যেহেতু আগামীতে বৃষ্টি আরো বেড়ে যেতে পারে। এখনও অনেক মালামাল নষ্ট হয়ে হচ্ছে।

বাইশারী বাজার ব্যবসায়ী পরিচালনা কমিটির সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম বাহাদুর বলেন, অস্থায়ী বাজারের বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মহোদয় কে জানানো হয়েছে। অচিরেই যে কোন একটা সমাধান হয়ে যাবে বলে আশা করেন।

বাইশারী ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ আলম কোম্পানি বলেন, ব্যবসায়ীদের কথা চিন্তা করে অস্থায়ী বাজারের বিষয়টি ইউএনও স্যারকে জানানো হয়েছে।

এ বিষয়ে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাদিয়া আফরিন কচি জানান, বাজার সভাপতি ও চেয়ারম্যান অস্থয়ী বাজারের বিষয়টি আমাকে জানিয়েছেন। অচিরেই সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে বাজার আগের জায়গায় ফিরিয়ে আনা হবে।

MicroWeb Technology Ltd

এই বিভাগের আরো সংবাদ

Leave a Reply

এই সংবাদটি দেখুন
Close
Back to top button