নীড় পাতা / পাহাড়ের সংবাদ / রাঙামাটি / বঙ্গমাতার জন্মদিন পালিত রাঙামাটিতে
parbatyachattagram

পার্বত্য জেলা রাঙামাটিতে যথাযোগ্য মর্যাদায় বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন নেছা মুজিবের ৯০ মত জন্মদিন পালিত হয়েছে।
দিবসটি উপলক্ষে রাঙামাটি জেলা প্রশাসন ও মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করে। কর্মসূচির মধ্যে ছিল আলোচনা সভা, বৃক্ষ রোপন, প্রশিক্ষণ প্রাপ্ত নারীদের মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ এবং হতদরিদ্র নারীদের নগদ অর্থ সহায়তা।

শনিবার সকালে জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন, রাঙামাটির জেলা প্রশাসক একেএম মামুনুর রশিদ, অতিরক্ত পুলিশ সুপার মোঃ ছুফি উল­াহ্, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট শিল্পী রাণী রায়, বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ সহ-সভাপতি হাজি মোঃ কামাল উদ্দিন, মহিলা আওয়ামীলীগ সভাপতি ফিরোজা বেগম চিনু, মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের উপ- পরিচালক হোসনে আরা বেগম।

আওয়ামীলীগ সহ-সভাপতি হাজি কামাল উদ্দিন বলেন, আজ আমরা বঙ্গমাতা সম্পর্কে অনেক অজানা তথ্য জেনেছি, দেশ সৃষ্টিতে বঙ্গবন্ধুর অবদানে অংশ রয়েছে বঙ্গমাতার। তিনি ছিলেন একজন সাদামাটা মানুষ, রাষ্ট্রের ফাস্ট লেডি পদবী তাঁকে স্পর্শ করতে পারেনি।

তিনি আরও বলেন, আমরা আমাদের থেকে উচ্চ পর্যায়ের মানুষের আয়ের দিকে তাকাই, ফলে তেমন জীবন যাপনের জন্য নিজের অজান্তেই দুর্নীতির সাথে জড়িয়ে যাই। আমরা যদি আমাদের থেকে নিন্ম আয়ের মানুষকে দেখতাম তাহলে দেশে কোন দুর্নীতি হতো না। আজ এই দেশ অনেক দূর এগিয়ে যেত। আমাদের দেশের সকল নারীরা যদি বঙ্গমাতার আংশিক আদর্শও তাদের জীবনে বাস্তবায়ন করতে পারেন তাহলেও আমরা সোনার বাংলা গড়তে পারবো।

মহিলা আওয়ামীলীগ সভাপতি ফিরোজা বেগম চিনু বলেন, বঙ্গমাতা একাধারে রাজনীতিবিদ ও সংগঠক ছিলেন। হাজারো বিপদে কখনই বিচলিত হননি, বরং সব সময় বঙ্গবন্ধুকে সহযোগিতা করে গেছেন বলেই বঙ্গবন্ধু আরও প্রত্যয়ী হয়ে বাংলার মানুষের মুক্তির জন্য লড়াই চালিয়ে গেছেন।

তিনি আরও বলেন, বঙ্গমাতা একজন মানবিক মানুষ ছিলেন, কোন মোহ তাঁকে ছুঁতে পারেনি। নিজর গহনা সম্পদ বিলিয়ে দিয়েছেন দেশের নারীদের কল্যাণে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ ছুফি উল­াহ বলেন, রাজনৈতিকভাবে সচেতন ও সংসারে দক্ষ কান্ডারি ছিলন বঙ্গমাতা। জেল থাকা বঙ্গবন্ধুর বিভিন্ন রাজনৈতিক নির্দেশনা কর্মীদের কাছে পৌঁছে দিতেন বঙ্গমাতা। বঙ্গবন্ধুর অনুপস্থিতিতে দেয়ালের মত আগলে রেখেছেন পরিবারকে, ফলে আজ আমরা একজন যোগ্য প্রধানমন্ত্রী পেয়েছি।

জেলা প্রসাসক একেএম মামুনুর রশিদ বলেন, সংসার ও রাজনীতির এক উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত আমাদের বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন নেছা মুজিব। তিনি এক সাথে বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক সহযোদ্ধা ও সংসার দেখভাল করেছেন। একজন মানুষ কতটা দক্ষ হলে এসকল প্রতিকূলতাও টিকে থাকতে পারে তার প্রকৃষ্ট উদাহরণ আমাদের বঙ্গমাতা।

আলোচনা সভা শেষে প্রশিক্ষিত নারীদের হাতে সেলাই মেশিন ও দরিদ্র নারীদের মাঝে নগদ অর্থ সহায়তা প্রদান করা হয়।
রাঙামাটিতে মোট ৬০টি সেলাই মেশিন ও ২০ দরিদ্র নারীকে নগদ ২ হাজার টাকা করে প্রদান করা হয়।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

পাহাড়ে স্থায়ী শান্তি প্রতিষ্ঠার জন্য অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারের দাবি

পার্বত্য চট্টগ্রামে স্থায়ী শান্তি প্রতিষ্ঠার জন্য অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারের দাবি জানিয়েছেন বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্ট মহাসচিব …

Leave a Reply