বান্দরবানব্রেকিংলিড

পাহাড়ের উন্নয়নে বৃহৎ পরিকল্পনা নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী

পার্বত্যবাসীর উন্নয়নে আন্তরিক আওয়ামীলীগ সরকার। পাহাড়ের মানুষের আত্মসামাজিক উন্নয়নে সরকার নানামুখী উন্নয়ন প্রকল্প হাতে নিয়েছে। আগামী অষ্টম পঞ্চবার্ষিকীতে পার্বত্য চট্টগ্রামের সামগ্রিক উন্নয়নের জন্য বৃহৎ পরিকল্পনা নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। দেশব্যাপী সরকারের উন্নয়ন মূলক কর্মকান্ডের জন্য সারাবিশ্ব আজ বাংলাদেশকে উন্নয়নের রোল মডেল হিসেবে দেখছে। প্রধানমন্ত্রীর সুদৃষ্টিতে পার্বত্যাঞ্চলের মানুষ বর্তমানে শিক্ষা-দিক্ষা সর্বক্ষেত্রে অনেকদূর এগিয়েছে। বৃহস্পতিবার বান্দরবান সদরের সূয়ালকে ১৭টি কোটি টাকা ব্যয়ে ছয়টি উন্নয়ন কাজের উদ্ধোধনকালে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং এসব কথা বলেছেন।

এসময় অন্যান্যদের মধ্যে বান্দরবানের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক শফিউল আজম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো: রেজওয়ানুল ইসলাম, বান্দরবান এলজিইডি’র নির্বাহী প্রকৌশলী এ.এস জিল্লুর রহমান, পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের বান্দরবান ইউনিটের নির্বাহী প্রকৌশলী ইয়াছির আরাফাত, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার নোমান হোসেন প্রিন্স, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আবদুল কুদ্দুছ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

উন্নয়ন কাজগুলো হচ্ছে- স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি) অর্থায়নে ৭ কোটি ৮০ লক্ষ টাকা ব্যয়ে হলুদিয়া-ভাগ্যকুল-টংকাবতী ভায়া আরএন্ডএইচ পর্যন্ত রাস্তা নির্মাণ, ৪ কোটি ৯৬ লক্ষ ৭০ হাজার টাকা ব্যয়ে সুয়ালক ইউনিয়ন পরিষদ থেকে সুলতানপুর পর্যন্ত রাস্তা নির্মাণ, এক কোটি ৩৫ লক্ষ টাকা ব্যয়ে পর্যটন স্পট নীলাচলের মুখ থেকে-মিলনছড়ি চিম্বুক রোডের মুখ পর্যন্ত রাস্তা নির্মাণ, এক কোটি ৭২ লক্ষ ৯৩ হাজার টাকা ব্যয়ে যৌথ খামার থেকে নীলাচল পর্যন্ত সড়ক প্রসস্ত করণ কাজ এবং শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তরের অর্থায়নে এক কোটি ৪৭ লক্ষ টাকা ব্যয়ে সুয়ালক উচ্চ বিদ্যালয়ে একতলা একাডেমিক ভবনের স্যানিটারী, পানি সরবরাহ ও বৈদ্যুতিক কাজের সম্প্রসারণ প্রকল্প।

MicroWeb Technology Ltd

এই বিভাগের আরো সংবাদ

Leave a Reply

Back to top button
Close