বান্দরবান

‘পাহাড়ি-বাঙালি বৈষম্য তৈরি করছে ইউএনডিপি’

বান্দরবানে পার্বত্য চট্টগ্রাম নাগরিক পরিষদ জেলা কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে। বুধবার বান্দরবান বেসরকারি রেস্টুরেন্ট মিলনায়তনে সংবাদ সম্মেলনে আনুষ্ঠানিকভাবে ১০১ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি ঘোষণা করা হয়।

কমিটিতে জেলা পরিষদের সাবেক সদস্য কাজী মুজিবর রহমানকে সভাপতি, জাতীয়পার্টির সাবেক নেতা কাজী নাছিরুল আলমকে সাধারণ সম্পাদক এবং সুশীল সমাজের প্রতিনিধি নাছির উদ্দিনকে সাংগঠনিক সম্পাদক করে ৩৩ সদস্যের সম্পাদকমন্ডলী ঘোষণা করা হয়।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে মুক্তিযোদ্ধা অব. ক্যাপ্টেন তারু মিয়া, পৌর কাউন্সিলর সামশুল হক সামু, শ্রমিকনেতা মো: নুরুল আলম, আইনজীবী আলমগীর কবির উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদ সম্মেলনে কেন্দ্রীয় কমিটির সিনিয়র সহ-সভাপতি ও জেলা সভাপতি কাজী মুজিবর রহমান বলেন, পার্বত্য শান্তি চুক্তির সাংঘর্ষিক ধারাগুলো সংশোধন করে পার্বত্য চুক্তির বাস্তবায়ন করার দাবি জানাচ্ছি। শান্তি চুক্তিতে প্রত্যেক জাতীগোষ্ঠির সমঅধিকার নিশ্চিত না হওয়ায় পাহাড়ে শান্তি ফিরেনি।

তিনি বলেন, এদেশের ভোটার তালিকায় সন্তু লারমার নাম নেই। ভোটার আইডি ব্যতিত একজন দেশদ্রোহী ব্যক্তি কিভাবে পাসপোর্ট নিয়ে বিদেশ ভ্রমণ করেন। আঞ্চলিক পরিষদের মত দায়িত্বশীল পদে থাকেন, আমার বোধগম্য হচ্ছে না।

তিনি আরও বলেন, পাহাড়ে পাহাড়ি-বাঙালিদের বৈষম্য তৈরি করছে দাতা সংস্থা ইউএনডিপি। করোনাকালীন সময়ে কর্মহীন মানুষদের আর্থিক সহযোগিতা ও ত্রাণ বিতরণে সব জাতিগোষ্ঠির মধ্যে সমবন্টন করা হয়নি।

এই বিভাগের আরো সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

three × 1 =

Back to top button