পার্বত্য পুরাণ

নির্নয় নিভৃতা’র তিনটি কবিতা

১.
তুই ছিলি মিষ্টি দুপুর,
রোদে শুকানো আমার ভেজা চুল।।
আজ ভীষণ একা যখন
ভাবি সেটাই ছিলো টাটকা ভুল।।
ভালোবাসার নীল জানলা খুলে,
তোর দুঃখ ছুঁতে যাই,
আমার ছোঁয়া ঝেড়ে ফেলে
একলা হয়েই থেকে যাস।।
আমার ভালোবাসা দামী বেশি,
তাই যাকে তাকে দেই না,
এইজন্যে এতো অবহেলায় পরেও
আর তোকে আমি ছুঁতে চাই না

 

২.
জেনে নিও রাত!
খুব প্রয়োজন কপাল ছুঁয়ে
দেয়া একটা হাত!

এই শহরের বৃষ্টিতে
মাতাল হাওয়ার গন্ধ
তাই এ শহরে নিভৃতা
ভিজতে গেলেই অন্ধ!!

৩.
আমার ভালো থাকার অস্ত্র, ‘আমি’ৃ
যে দেয়াল পেরিয়ে প্রবেশের
সাধ্যি নেই কারো…
আমার ভালো লাগার কারন ‘আমিই’…
তাই কতো ইচ্ছে পোষায় নিজ মনে…
আমার ভালোবাসার দেয়াল ‘তুমি’!
একদম সাদা দেয়াল
সেই দেয়াল আমি সাজাই-
রঙিন কাগজ হাতে কেটে-
রঙবেরঙের ফুল আর ছোট্ট প্রজাপতিদের দিয়ে…
ভাবনার রংধনু মেশানো ফুলেরা
প্রাণ ছাড়া জড় হলেও-
সেই ফুলেরা চিনে আমায়…
তাদের সাথে আমার-
বড্ড চেনা পরিচয়!
আর দেয়াল জুড়ে ছড়ানো-
প্রজাপতি গুলো?
ওদের দেখলেই বুঝে উঠি
ছুটে বেড়ায় তারা এদিক সেদিক-
আমার সে দেয়ালে
জানিৃসে জানিৃবড্ড শক্ত সে দেয়াল!!
সেই আগের ভালো লাগা-
ভালোবাসায় পুড়েও সাদা রঙেই-
আজও ঠেকে দাঁড়িয়ে
আমাদের দেয়াল।।
বহু কাঁটা লাগানো দেয়াল…
তবু ঠেকে আছি,থাকি-
আমার একলা দেয়ালে
ভালোবাসি বলেই…।।

 

 

এই বিভাগের আরো সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ten + fourteen =

এই সংবাদটি দেখুন
Close
Back to top button