বান্দরবান

ধারের টাকা ফেরত না দেয়ায় যুবকের হামলায় স্বামী স্ত্রী আহত

নুরুল করিম আরমান, লামা
ধারের টাকা ফেরত না দেওয়ায় বান্দরবানের লামা উপজেলায় নওমুসলিমসহ দুই জনের ওপর হামলা করেছেন এক যুবক। উপজেলার লামা সদর ইউনিয়নের দুর্গম পাহাড়ি মেউলারচর গ্রামে বুধবার সকালে এ ঘটনা ঘটে। হামলায় আহতরা হলেন- শান্তিময় চাকমার ছেলে নওমুসলিম মো. আবদুস সোবহান (৩৫) ও স্ত্রী হামিদা বেগম (৩০)। পরে হামলাকারী মো. জসিম উদ্দিনকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেন স্থানীয়রা।
সূত্র জানায়, কিছুদিন পূর্বে জসিম উদ্দিন মেউলারচর গ্রামের বাসিন্দা আবদুস সোবহানের স্ত্রী হামিদা বেগমকে ২৫ হাজার টাকা ধার দেন। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে হামিদা বেগম ধারের টাকা ফেরত না দিলে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের ৫নং ওয়ার্ড সদস্যকে অভিযোগ করেন জসিম উদ্দিন। কিন্তু হামিদা বেগম সালিশি বৈঠকে গিয়ে জসিম উদ্দিনের কাছ থেকে টাকা ধার নেওয়ার বিষয়টি অস্বীকার করেন। এ নিয়ে উভয়ের মধ্যে বিরোধ সৃষ্টি হয়। এক পর্যায়ে বুধবার সকাল ৬টার দিকে হামিদা বেগম ও তার স্বামীর ওপর ক্ষিপ্ত হয়ে হামলা করে জসিম উদ্দিন। পরে স্থানীয়রা আহত স্বামী স্ত্রীকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য দায়িত্বরত চিকিৎসক আহতদেরকে কক্সবাজার সদর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠিয়ে দেন।
এ বিষয়ে লামা সদর ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য আবদুর রহমান বলেন, টাকা ধারের বিষয়ে হামিদা বেগমের বিরুদ্ধে জসিম উদ্দিন আমার কাছে অভিযোগ করেন। কিন্তু হামিদা বেগম কোন টাকা ধার নেয়নি বলে জানান। এ কারণে ঘটনাটি সমাধা করা যায়নি।
ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে লামা থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মিজানুর রহমান বলেন, স্বামী স্ত্রীর ওপর হামলাকারী যুবক জসিম উদ্দিনকে এলাকাবাসীর সহায়তায় আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

এই বিভাগের আরো সংবাদ

Leave a Reply

Back to top button