নীড় পাতা / ব্রেকিং / চায়ের দোকানে বসে ‘সমালোচনা’ করার কারণেই হত্যা !
parbatyachattagram

মিশর চাকমাকে নিজেদের সমর্থক দাবি !

চায়ের দোকানে বসে ‘সমালোচনা’ করার কারণেই হত্যা !

রাঙামাটির বাঘাইছড়িতে সন্ত্রাসী হামলায় নিহত মিশর চাকমাকে নিজেদের সমর্থক দাবি করে এই হত্যাকান্ডের জন্য পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি(এমএনলারমা)কে দায়ি করেছে ইউনাইটেডপিপলস্ ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ)। একই সাথে তারা দাবি করেছে, মিশর চাকমা সংস্কারবাদীদের একজন কট্টর সমালোচক ছিলেন এবং ঘটনার ৪-৫ দিন আগে দোকানে বসে লোকজনের সামনে প্রকাশ্যে তাদের বিভিন্ন অপকর্মের কড়া সমালোচনা করেছিলেন।’ এইভাবে সমালোচনার কারণে তাকে সংস্কারবাদীরা খুন করেছে মন্তব্যও করেছে সংগঠনটি।

সংগঠনের প্রচার ও প্রকাশনা বিভাগের সদস্য মাইকেল চাকমা সাক্ষরিত গণমাধ্যমে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সংগঠনটির বাঘাইছড়ি ইউনিটের সংগঠক জুয়েল চাকমা এক বিবৃতিতে বুধবার রাতে উত্তর বঙ্গলতলী গ্রামে মিশর চাকমা (৩০)নামে এক ইউপিডিএফ সমর্থককে হত্যার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

অবিলম্বে হত্যাকারীদের গ্রেফতার ও শাস্তি দাবি করে তিনি বলেন, ‘রাত সোয়া আটটার দিকে পাড়ার দোকানে আড্ডা দেয়ার পর বাড়ির উদ্দেশ্যে রওনা হলে ওঁৎ পেতে থাকা ঘাতকরা তার নিজ বাড়ির পাশে তাকে লাঠি দিয়ে উপর্যুপরি আঘাত করে হত্যা করে। মিশর চাকমাকে হত্যার জন্য জেএসএস সংস্কারবাদীদের দায়ি করেন তিনি।

স্থানীয়ভাবে প্রাপ্ত সংবাদ ও আইনশৃংখলারক্ষাকারি বাহিনী এবং পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি(এমএনলারমা) মিশন চাকমাকে জনসংহতি সমিতি(এমএনলারমা)’র কর্মী বলেই জানিয়েছে। ইউপিডিএফ এর মুখপাত্র নিরন চাকমাও নিহত মিশরের মৃত্যুকে জনসংহতি সমিতির আভ্যন্তরীন বিরোধের ফল বলে মন্তব্য করেছেন। কিন্তু ২৪ ঘন্টা না পেরোতেই হঠাৎ ইউপিডিএফ এর বিবৃতি ও নিহত মিশরকে নিজেদের কর্মী দাবি করার ঘটনাকে তাই বিস্ময়করই বলছেন সংশ্লিষ্টরা।

Micro Web Technology

আরো দেখুন

যুথবদ্ধ এক বিকেল রাঙামাটির স্বেচ্ছাসেবীদের

রাঙামাটির সামাজিক ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনগুলো যুথবদ্ধভাবে পালন করছে আন্তর্জাতিক স্বেচ্ছাসেবক দিবস ২০১৯। কাটিয়েছে নিজেদের মত …

Leave a Reply