নীড় পাতা / পাহাড়ের সংবাদ / বান্দরবান / পৌরসভার সমালোচনা করায় দোকানের সামনে ময়লার স্তুপ !

পৌরসভার সমালোচনা করায় দোকানের সামনে ময়লার স্তুপ !

বান্দরবানে মুদি দোকানের সামনে পৌরসভার ময়লা-আবর্জনার স্তুপ রাখায় দোকানপাট বন্ধ রেখে বিক্ষোভ করেছে ব্যবসায়ীরা। শুক্রবার সকালে এ ঘটনা ঘটে।

ব্যবসায়ী ও স্থানীয়রা জানায়, বান্দরবান বাজারের মন্দির মার্কেটের বিপরীতে বাজারের মুদি দোকান ব্যবসায়ী সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক বিমল কান্তি দাশের দোকানের সামনে পৌর শহরের অপসারণ করা দূর্গন্ধযুক্ত ময়লা-আবর্জনার একটি স্তুপ গাড়ীতে করে ফেলে যায় দুস্কৃতকারীরা। বাজারের আশপাশের গলি, সড়কগুলো থেকে প্রতিদিনের মত ময়লা-আবর্জনাগুলো পরিস্কার পরিচ্ছন্ন করা হলেও ফেলে রাখা ময়লা-আবর্জনার স্তুপটি পরিস্কার হয়নি।

এ ঘটনার প্রতিবাদে বাজারের সকল ব্যবসায়ীরা দ্রুত সব ধরণের দোকানপাট বন্ধ করে দিয়ে শহরে বিক্ষোভ মিছিল বের করে। পরে বঙ্গবন্ধু মুক্তমঞ্চে প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন বাজার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি মোহাম্মদ আলী, রেষ্টুরেন্ট মালিক সমিতির সভাপতি গিয়াস উদ্দিন, আবাসিক হোটেল মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম, ব্যবসায়ী বাবু কর্মকার প্রমুখ।

এদিকে ব্যবসায়ীদের আন্দোলনের মুখে পৌরসভার কর্মচারীরা সকালে এগারোটার সময় ঘটনাস্থলে গিয়ে দোকানের সামনে থেকে ময়লা-আবর্জনা গুলো পরিস্কার পরিচ্ছন্ন করে অপসারিত ময়লাগুলো গাড়ীতে করে নিয়ে যায়। পরে দুপুরে দেড়টার পর দোকানপাট খুলে বসে ব্যবসায়ীরা।

বাজারের ব্যবসায়ী মোহাম্মদ আলী, গিয়াস উদ্দিন বলেন, ঐ মুদি দোকানে ন্যায্য মূল্যে (ওএমএস) চাল বিক্রি করে। বিভিন্ন ধরনের মানুষ লাইনে দাঁড়য়ে চাল সংগ্রহ করে। চাল বিক্রি নিয়ে বাকবিতন্ডার ঘটনা ঘটতে পারে। কয়েকদিন আগে বাজার মসজিদের সামনে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রন রাখতে আয়োজিত সভায় বিমল কান্তি দাশ পৌরসভার নাগরিক সেবা নিয়ে প্রকাশ্যে সমালোচনা করেছিলেন। কিন্তু দোকানের সামনে ময়লা আবর্জনার স্তুপ ফেলে রাখাটা অন্যায়। আমরা বিষয়টির তীব্র নিন্দা এবং দোষীদের শাস্তির দাবী জানাচ্ছি।

তবে বান্দরবান পৌরসভার মেয়র মোহাম্মদ ইসলাম বেবী গনমাধ্যমকর্মীদের জানান, দোকানের সামনে এভাবে দূর্গন্ধযুক্ত ময়লা-আবর্জনা স্তুপ করে রাখার ঘটনাটি দু:খজনক। আমি খবর পেয়ে ময়লাগুলো সরিয়ে নেয়ার নির্দেশ দিয়েছি। বিষয়টি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আরো দেখুন

মানিকছড়িতে ছাত্রলীগের শীতবস্ত্র বিতরণ

পাহাড়ে জেঁকে বসেছে শীত। এতে নির্ঘুম রাত কাটাচ্ছে অসহায় দরিদ্র মানুষ। রাতে ঘরে, উঠানে আগুন …

2 মন্তব্য

  1. বুজতে হবে,,, এটাই‌রাঙ্গামাটি!!!!

  2. যেখানে রাস্তার উপর ময়লা ফেলা হয়।
    নেই কোনো নিদিষ্ট জায়গা??

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

two × 3 =